Home / মিডিয়া নিউজ / আমার এখনও সিনেমায় অভিনয়ের ইচ্ছে রয়ে গেছে: পড়শী

আমার এখনও সিনেমায় অভিনয়ের ইচ্ছে রয়ে গেছে: পড়শী

পড়শী। তারকা কণ্ঠশিল্পী, মডেল ও অভিনেত্রী। সম্প্রতি নতুন গানের আয়োজন নিয়ে ব্যস্ত সময়

কাটছে তার। সাম্প্রতিক কাজ ও অন্যান্য প্রসঙ্গ নিয়ে কথা হয় তার সঙ্গে- স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে

‘পূর্ব দিগন্তে সূর্য উঠেছে’ গানটি নতুন করে রেকর্ড করা হলো। এ গানে কণ্ঠ দিয়ে কেমন লাগছে?

যে গানের সঙ্গে আমাদের মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস জড়িয়ে আছে, তা নতুন করে গাইতে পারা যে কোনো

শিল্পীর জন্যই আনন্দের। গান রেকর্ডের মুহূর্তটায় অন্য রকম এক ভালো লাগায় মন ভরে গিয়েছিল। স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের এই কালজয়ী গানের মূল শিল্পীদের একজন জালিয়া নওশিন আমাদের সঙ্গে আরও একবার গেয়েছেন, এটাই ছিল ভীষণ ভালো লাগার। গানের অন্য শিল্পীরা আমার ভীষণ প্রিয়। সব মিলিয়ে এটি আমার জীবনের স্মরণীয় কাজের একটি।

এর মধ্যে নতুন আর কোনো গান রেকর্ড করেছেন?

এর মধ্যে বেশ কিছু গানের কথা, সুর ও সংগীতায়োজন করা হয়েছে; কিন্তু রেকর্ড করা হয়নি। রিয়েলিটি শো ‘ইয়াং স্টার’ নিয়ে এত ব্যস্ত হয়ে পড়েছি যে চাইলেও নতুন গান রেকর্ড করার সুযোগ হচ্ছে না। ব্যস্ততা কমলে তার পর নতুন গানের প্রকাশনা নিয়ে ভাববো।

একসময় রিয়েলিটি শোর প্রতিযোগী ছিলেন। এখন নিজেই একটি রিয়েলিটি শোর বিচারক- বিষয়টা কীভাবে দেখেন?

কয়েক বছরের ব্যবধানে রিয়েলিটি শোর প্রতিযোগী থেকে বিচারক হয়ে যাওয়াটা আমার কছে স্বপ্নের মতো। যারা আমাকে এই দায়িত্ব পালনের যোগ্য মনে করেছেন, তাদের আস্থার প্রতিদান দেওয়ার চেষ্টা করে যাচ্ছি। ‘ইয়াং স্টার’ সংগীত প্রতিযোগিতায় বিচারকের আসনে বসতে পারা যতটা আনন্দের, ততটাই চ্যালেঞ্জিং। আমি কোনোভাবেই চাই না, আমার একটা ভুলের জন্য কোনো প্রতিযোগীকে নিরাশ হতে হয়। তাই সর্বোচ্চ চেষ্টা করছি, বিচারকাজটা যেন নিখুঁত হয়। সেইসঙ্গে নতুনদের পাশে থাকার চেষ্টা করে যাচ্ছি, যাতে তারা প্রতিযোগিতায় ভালো কিছু করে দেখাতে পারে। প্রতিযোগিতার অন্য দুই বিচারক ইবরার টিপু, যাকে আমার মেন্টর মনে করি, তিনি এবং বড় ভাইতুল্য শিল্পী প্রতীক হাসান সব ধরনের সহযোগিতা করে যাচ্ছেন। তাদের সাহস আর সহযোগিতায় বিচারকের দায়িত্ব ঠিকভাবেই পালন করতে পারছি।

‘ইয়াং স্টার’ রিয়েলিটি শোর প্রতিযোগীদের কতটা সম্ভাবনাময় বলে মনে হচ্ছে?

প্রতিযোগীদের অনেকেই সম্ভাবনাময়। আমি ১৩ বছর গানের ভুবনে পথ চলছি। এক যুগের বেশি সময়ে আমি যে পর্যায়ে আসতে পেরেছি, তাদের অনেকের হয়তো প্রতিষ্ঠার জন্য এতটা সময় লাগবে না। এমন কয়েকজন শিল্পী খুঁজে বের করতে পারাই সবচেয়ে বড় আনন্দের। গানের এই প্ল্যাটফর্ম থেকে অনেকে প্রতিষ্ঠা পাবেন বলেই আমার বিশ্বাস।

এবার বলুন, আবার কবে মডেল ও অভিনেত্রী পড়শীর দেখা পাওয়া যাবে?

গানের ভিডিওতে তো মডেল হিসেবে কাজ করছিই। তবে বিজ্ঞাপনে কবে দেখা যাবে, এটা বলা কঠিন। নাটক ও সিনেমার বিষয়েও নিশ্চিত করে বলতে পারব না, কবে আমাকে দেখা যাবে। তবে অভিনয়ের ইচ্ছা এখনো আছে। ভালো কাজের প্রস্তাব পেলেই বড় কিংবা ছোটপর্দায় কাজ করব।

Check Also

বাংলাদেশ আমাদেরই একটা অংশ: কৌশানি

ভারতের পশ্চিমবঙ্গের অভিনেত্রী কৌশানি মুখার্জি। অভিনয় করেন কলকাতার সিনেমায়। অর্ধ যুগের ক্যারিয়ারে পেয়েছেন দারুণ পরিচিতি। …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Recent Comments

No comments to show.